মোবাইল ব্যাংকিং: ব্যালেন্স দেখলে টাকা যাবে না গ্রাহকের

মোবাইলে আর্থিক লেনদেনে গ্রাহকদের ওপর নতুন করে চার্জ আরোপের কোনো সুযোগ নেই বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)

আজ মঙ্গলবার এক বিজ্ঞপ্তিতে বিটিআরসি জানিয়েছে, মোবাইল ফিন্যান্সিয়াল সার্ভিস সুষ্ঠুভাবে পরিচালনার লক্ষ্যে বিটিআরসি থেকে মোবাইল অপারেটরদের বিভিন্ন সময় নানা নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে, যা সমন্বিতভাবে একযোগে প্রকাশের প্রয়োজনীয়তা অনেক দিন থেকেই প্রয়োজন ছিল। এর অংশ হিসেবে গত ১৩ জুন ২০১৯ Directives on Mobile financial Services in Bangladesh 2019 জারি করা হয়, যা গত আগস্ট ২০১৮ থেকে ওই দিন পর্যন্ত কমিশন থেকে জারিকৃত সব নির্দেশনার একটি সংকলন।

বিটিআরসি জানায়, গত ১৩ জুন তারা যে নির্দেশনা জারি করে তাতে বলা হয়েছে গ্রাহকের ওপর নতুন করে চার্জ আরোপের কোনো সুযোগ নেই। আনস্ট্রাকচারড সাপ্লিমেন্টারি সার্ভিস ডেটা বা ইউএসএসডির ওপর প্রতিবার ৪০ থেকে ৮৫ পয়সা পাবে মোবাইল ফোন অপারেটরগুলো। নির্দেশনায় বলা হয়েছে, ৯০ সেকেন্ডের মধ্যে একটি আর্থিক লেনদেন সম্পন্ন হলে এজন্য মোবাইল ফোন অপারেটররা ৮৫ পয়সা পাবে। এ ছাড়া আর্থিক লেনদেন ছাড়া অন্য কাজের জন্য প্রতিবার ৪০ পয়সা দিতে হবে।

প্রতিটি লেনদেন সম্পন্ন হওয়া অথবা ব্যালান্স দেখার জন্য গ্রাহকেরা নির্দিষ্ট নম্বর ডায়াল করার পর ফিরতি এসএমএস পান। এটাই ইউএসএসডি। মূলত আর্থিক লেনদেন ছাড়া ব্যালান্স দেখার কাজই করেন গ্রাহক। এই ৪০ পয়সা কি গ্রাহক দেবে না সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠান দেবে তা নিয়ে সুনির্দিষ্ট কোনো নির্দেশনা ছিল না। এর প্রেক্ষিতেই নির্দেশনা জারি করল বিটিআরসি।

বিকাশের হেড অব কর্পোরেট কমিউনিকেশন শামসুদ্দিন হায়দার বলেন, ‘নির্দেশনার বিষয়টি আমরা জেনেছি। এখনো বিভিন্ন পর্যায়ে এটি নিয়ে আলোচনার সুযোগ আছে। এর আগে গ্রাহককে নতুন করে কোনো টাকা দিতে হবে না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.