আফগান স্পিনারদের নিয়ে চিন্তিত নয় বাংলাদেশ

চলতি বিশ্বকাপে এর আগে বড় বড় দলের সঙ্গে খেলেছে বাংলাদেশ। এবার সামনে আফগানিস্তান। এরা এমন একটি দল যারা কাগজে-কলমে ছোট। তবে বাংলাদেশকে কখনোই তারা ছেড়ে কথা বলেনি। এ পর্যন্ত সাত ওডিআই ম্যাচের মুখোমুখি লড়াইয়ে চারটিতে বাংলাদেশ এবং তিনটিতে জিতেছেন আফগানরা।

বিশ্বকাপে আগামীকাল আফগানিস্তানের বিপক্ষে খেলতে নামবে বাংলাদেশ। বাংলাদেশের জন্য ম্যাচটি অনেক গুরুত্বপূূর্ণ। এই ম্যাচ জিতলে জোরালো হবে সেমিফাইনালের স্বপ্ন। হেরে গেলে পচা শামুকে পা কেটে আরো এক ধাপ পিছিয়ে পড়তে হবে। এমন এক কঠিন পরিস্থিতিতে এই ম্যাচ নিয়ে কী ভাবছেন বাংলাদেশের মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ মিঠুন। গতকাল শনিবার সাউদাম্পটনের লিওনার্দো রয়াল হোটেলের সামনে কথা হয় তাঁর সঙ্গে।

জানতে চাওয়া হয়, বাংলাদেশের জন্য আগের ম্যাচগুলোর তুলনায় আফগানিস্তান ম্যাচটা কি বেশি স্বস্তিদায়ক হবে। নাকি আরো বেশি সাবধানি থাকবে টাইগাররা। উত্তরে হেসে দিয়ে মিঠুন বলেন, আমারতো মনে হয় আরো বেশি সাবধান থাকতে হবে। কারণ, অস্ট্রেলিয়ার সাথে হারলে আপনারা অনেক কিছু গ্রহণ করে নেবেন। অস্ট্রেলিয়া আমাদের চেয়ে ওপরের দল। আফগানিস্তানের সাথে হারলে কিন্তু সেটা করবেন না। সবাই আশা করছে যেন আমরা এই ম্যাচটা জিতি। প্রত্যেকটা ম্যাচই আমাদের কাছে সমান। প্রত্যেকটা ম্যাচই আমরা জেতার জন্য নামি। তবে এই ম্যাচে আমাদের আরো বেশি সতর্ক থাকতে হবে।

আগের ম্যাচগুলোতে বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের ভাবনায় ছিল প্রতিপক্ষের পেস বোলাররা। কালকের ম্যাচে বড় বাধা হবে আফগান স্পিনাররা। গতকাল সাউদাম্পটনে ভারতের শক্তিশালী ব্যাটিং লাইনকেও কাঁপিয়ে দিয়েছে রশিদ খান- নবীরা। তবে বাংলাদেশ শিবিরে আফগান স্পিনারদের নিয়ে খুব আতঙ্ক নেই।

গতকাল মিঠুন বলেন, স্পিনে বাংলাদেশ সবসময় ভালই খেলে। স্পিন নিয়ে খুব বেশি দুঃশ্চিন্তা নেই। যদিও ওদের কিছু বিশ্বমানের স্পিনার আছে। তারপরও আমাদের ব্যাটিং যখন ছন্দে থাকে তখন পেস বা স্পিন কোনো ব্যাপার না। মানিয়ে নেয়া খুব একটা সমস্যা না। ব্যাটিংটা আসলে পুরোপুরি একটা আত্মবিশ্বাসের বিষয়। একটা ব্যাটসম্যান যদি মানসিকভাবে ভাল অবস্থায় থাকে তাহলে যে কোনো কিছু মানিয়ে নিতে পারে।

আফগানিস্তান ম্যাচের আগে টিমের মানসিক অবস্থা কি জানতে চাইলে মিঠুন বলেন, সবাই খুব ভাল অবস্থায় আছে। এই টুর্নামেন্টে আমরা খারাপ ক্রিকেট খেলিনি। ভালই খেলেছি। সবাই ভাল করছে। সবাই মানসিকভাবে অনেক চাঙ্গা আছে।

মিডল অর্ডার এই ব্যাটসম্যান বলেন, প্রতিট ম্যাচই গুরুত্বপূণর্, প্রতিপক্ষ আফগানিস্তান হোক আর অস্ট্রেলিয়া হোক। প্রতিটা ম্যাচই আমরা জেতার জন্য নামি। প্রধান লক্ষ্য থাকে ম্যাচটা উইন করা। আর সাথে সাথে আমাদের ফিল্ডিং, বোলিং ও ব্যাটিংয়ে মনোযোগী হওয়া। যেন প্রত্যেকটা বিভাগে সেরা খেলাটা খেলতে পারি, আমরা সেটাই চাই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.