মহেশপুরে স্ত্রীর মর্যাদা পেতে সমাজপতিদের দ্বারে দ্বারে ঘুরছে অসহায় এক নারী

মহেশপুর(ঝিনাইদহ)প্রতিনিধিঃ মহেশপুরে স্ত্রীর মর্যাদা পেতে সমাজপতিদের দ্বারে দ্বারে ঘুরছে অসহায় এক নারী।
পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, উপজেলার পান্তাপাড়া গ্রামের নজরুল ইসলামের মেয়ে নাজমা খাতুনের সাথে একই গ্রামের আবুল গাজীর ছেলে হারুন গাজি প্রেমজ সম্পর্কের মাধ্যমে ৩ বছর আগে ঢাকায় নিয়ে যেয়ে বিয়ে করে। বিয়ের পর হারুন নাজমাকে কৌশলে বাবার বাড়ীতে পাঠিয়ে দেয় এবং তাকে ঘরে তুলে নিতে টালবাহানা করে।
গত ২২শে মার্চ মেয়েটি স্ত্রীর দাবীতে হারুনের বাড়ীতে অবস্থান নিলে হারুন কৌশলে বাড়ী থেকে সরে যায় এবং তার পরিবারের লোকজন তাকে শারীরিক ও মানসিক নির্যতন করে। মেয়েটি উপায়ন্তু না পেয়ে বাবার বাড়ী ফিরে আসে। বর্তমানে সে বাবার বাড়ীতে মানবেতর জীবন যাপন করছে। এ বিষয়ে পান্তাপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের সালিশ বেঠকে কোন বিচার না পাওয়ায় সে ঝিনাইদহ আদালতে মামলা করেছে। যার নং-মহেশ জিআর ২১৬/১৯।
নাজামা খাতুন জানায়, তাকে ফুঁসলিয়ে তার সাখে প্রেমের সম্পর্ক করে ঢাকায় নিয়ে যেয়ে বিয়ে করে এখন সে অস্বীকার করছে। অসহায় দরিদ্র পরিবারের মেয়ে নাজমা খাতুন সঠিক বিচার পেতে মানবাধিকার সংগঠন সহ সরকারের উপর মহলের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.