গাছ কর্তনের সংবাদ প্রকাশে খুন জখমের হুমকি, প্রাণ রক্ষার্থে শৈলকুপা থানায় জিডি

ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ঝিনাইদহের হরিণাকুন্ডুতে আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে গাছ কর্তনের সংবাদ বিভিন্ন পত্রিকায় প্রকাশের পর প্রতিপক্ষরা খুন জখমের হুমকি দিলে, জেলার শৈলকুপা থানায় প্রাণের নিরাপত্তায় জিডি করেছেন শৈলকুপা উপজেলার কুলচারা গ্রামের মৃতঃ নায়েব আলী মন্ডলের ছেলে তৈয়োব আলী। উক্ত বিষয়ে দৈনিক মাটির ডাক, নবচিত্র, নওয়াপাড়া, স্পন্দন, বীরদর্পন সংবাদপত্রে খবর প্রকাশিত হয়। উক্ত সংবাদপত্র প্রকাশিত হওয়ার কারণে বিবাদিরা ক্ষিপ্ত হয়ে তৈয়োব আলী গংদের খুন জখমের হুমকি দেন। তৈয়োব আলী তার জিডিতে বলেন, হরিণাকুন্ডু উপজেলার মকিমপুর গ্রামের ৭৭ নম্বর মৌজায় সাবেক ৩১৪ ও হাল ৩৮১ দাগে তার ১৬ শতক জমি আছে। আমার উক্ত জমির পাশে ঝিনাইদহ সদরের চরখাজুরা ও মকিমপুর গ্রামের বিবাদি ১। লাল্টু মল্লিক (৩৮), ২। মোঃ শাহীন বিশ্বাস (৪০) ৩। মোঃ রুহুল মন্ডল(৫০), ৪। মোঃ রিংকু আলী (২৮), বিবাদী জমি আছে। আমার উক্ত সম্পত্তি জোর পূর্বক দখল করার জন্য বিবাদীগণ বিভিন্ন সময় বিভিন্নভাবে চেষ্টা করে আসিতেছে। উক্ত জমি নিয়ে বিজ্ঞ আদালতে একটি মোকদ্দমা হয়। যাহার রায় আমাদের পক্ষে হয়। গত ইং-২৭/০৮/২০১৯ তারিখ বিকাল অনুঃ ০৪.০০ ঘটিকার সময় আমি আমার উক্ত জমি দেখার জন্য হরিণাকুন্ডু থানাধীন মকিমপুর গ্রামস্থ নি¤œ বর্ণিত জমিতে গেলে দেখি বিবাদীগণ আমার জমি দখল করার জন্য জমি থাকা ৩০ টি মেহগুনী গাছ, ০৫ টি সেগুন গাছ ,০৭ লেবু গাছ কাটিয়া আনুঃ ১২,০০০/- টাকার ক্ষতি সাধন করিয়াছে। গাছ কাটার বিষয়ে বিবাদীদের সাথে কথা বলিতে গেলে বিবাদীগণ আমাকে অকথ্য ভাষায় গালিগাজ করিতে থাকে। আমি গালিগালাজের প্রতিবাদ করলে সাক্ষী কুলচারা গ্রামের ফজলু, মোঃ দুলাল ও রেজাউল ইসলামের সামনে বিবাদীগণ এলোপাতাড়ীভাবে কিল, ঘুষি লাথি মারিয়া নিলা ফোলা করিয়া আমাকে সাধারণ জখম করে। এঘটনায় এলাকার অনেকে ঘটনাস্থলে হইলে বিবাদীগণ আমাকে বিভিন্ন প্রকার ভয়ভীতি ও খুন জখমের হুমকি প্রদান করে চলে যায়। বিষয়টি স্থানীয়ভাবে আপোষ মিমাংসা না হওয়া য়শৈলকুপা থানায় একটি জিডি দাখিল করি। শৈলকুপা থানার জিডি নং-১১৫৮। তারিখ-২৯.০৮.১৯। শৈলকুপা থানার এসআই সামসুল উক্ত বিষয়ে তদন্ত করছেন। তবে তার বক্তব্য নিতে গেলে তার মোবাইল (০১৭১৮-৩৬০৬৫৪) ফোন বন্ধ পাওয়া যায়। উল্লেখ্য, ঝিনাইদহের হরিণাকুন্ডু উপজেলার মকিমপুরে আদালতের (১৪৪-ধারা) নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ২৭শে আগষ্ট মঙ্গলবার বিকেলে কুলচারা গ্রামের মৃতঃ নায়েব আলী মন্ডলের ছেলে অসহায় কৃষক তৈয়োব আলী গংদের ১৬ শতাংশ জমির গাছ কেটে দিয়েছিলো লাল্টু মল্লিক, শাহীন বিশ্বাস, রুহুল মন্ডল রিংকু আলী ও অজ্ঞাত লোকজন। গাছ কর্তনের সংবাদ বিভিন্ন পত্রিকায় প্রকাশের পর প্রতিপক্ষরা খুন জখমের হুমকি দিলে, প্রাণের নিরাপত্তায় জেলার শৈলকুপা থানায় জিডি করেছেন কুলচারা গ্রামের তৈয়োব আলী।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.